ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২ শ্রাবণ ১৪২৬, ১৮ জুলাই ২০১৯
Risingbd
সর্বশেষ:

‘প্রস্তাবিত বাজেটে পুঁজিবাজারে পরিবর্তন আসবে’

রেজাউল করিম : রাইজিংবিডি ডট কম
     
প্রকাশ: ২০১৯-০৬-১৪ ৬:৩০:২৯ পিএম     ||     আপডেট: ২০১৯-০৬-১৪ ৬:৩০:২৯ পিএম
‘প্রস্তাবিত বাজেটে পুঁজিবাজারে পরিবর্তন আসবে’
Voice Control HD Smart LED

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম : জাতীয় সংসদে ২০১৯-২০২০ অর্থ বছরের প্রস্তাবিত বাজেটের ফলে দেশের পুঁজিবাজারে পরিবর্তন আসতে পারে বলে জানিয়েছেন চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি।

বাজেটের উপর প্রতিক্রিয়া জানাতে গিয়ে শুক্রবার চেম্বারের পরিচালকমণ্ডলীর পক্ষ থেকে সহ-সভাপতি সৈয়দ জামাল আহমেদ রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘‘চট্টগ্রাম-ঢাকা দ্রুতগতির ট্রেন ও বে-টার্মিনাল নির্মাণ পরিকল্পনা আমরা সাধুবাদ জানাই। একই সঙ্গে এই প্রকল্পগুলো অগ্রাধিকার ভিত্তিতে বাস্তবায়নের দাবি জানাই।’’

সৈয়দ জামাল বলেন, এসএমই খাতের উন্নয়ন, নারী উদ্যোক্তা সৃষ্টি, দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ ও রাজস্ব আহরণের আওতা বৃদ্ধিতে ভূমিকা রাখবে প্রস্তাবিত বাজেট। ৮ দশমিক ২ শতাংশ জিডিপি প্রবৃদ্ধি অর্জন করা গেলে দেশের উন্নয়ন ত্বরান্বিত হবে। প্রস্তাবিত বাজেটের কারণে বাজারে বেশিরভাগ দ্রব্যমূল্যের পরিবর্তন হওয়ার সম্ভাবনা নেই। সরকার ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে অব্যাহত সুবিধার পাশাপাশি কিছু নতুন সুযোগ সৃষ্টি করেছে। স্থানীয় সরকার, সড়ক ও রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা এবং বিদ্যুৎখাতে সর্বোচ্চ বরাদ্দের ফলে অবকাঠামোগত উন্নয়ন ত্বরান্বিত হবে ও দেশি-বিদেশি বিনিয়োগ বৃদ্ধি পাবে।

তিনি বলেন, ‘‘ব্যক্তিগত করমুক্ত সীমা গত ৪ বছর ধরে অপরিবর্তিত রয়েছে। আমরা এই সীমা বৃদ্ধি করার দাবি জানাচ্ছি। ঠিকাদারি ও সরবরাহ বিলে উৎসে কর হ্রাস করা হয়েছে, অগ্রিম কর প্রদানের ক্ষেত্রে সীমা ৪ লাখ থেকে ৬ লাখ টাকা এবং এসএমই খাতে টার্নওভার ৩৬ লাখ থেকে ৫০ লাখে উন্নীত করা হয়েছে, যা ইতিবাচক। হস্তশিল্প রপ্তানিকে করমুক্ত রাখার সময়সীমা ৫ বছর বৃদ্ধি করা হয়েছে। তৈরিপোশাক শিল্পে হ্রাসকৃত করহার সুবিধা অব্যাহত রাখা দেশের প্রধান রপ্তানি খাতকে উৎসাহিত করবে। এ ছাড়া সারচার্জের ক্ষেত্রে ২ কোটি ২৫ লাখ টাকার সীমা ৩ কোটি টাকা পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে। দেশীয় কৃষি যন্ত্রপাতি, আসবাবপত্র, চামড়াজাত পণ্য, গৃহস্থালী পণ্য ইত্যাদি কর অবকাশ সুবিধা প্রদানের প্রস্তাব করা হয়েছে।’’

তিনি বলেন, পুঁজিবাজারে ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীদের সুবিধার্থে ডিভিডেন্ড হতে আয়ের করমুক্ত সীমা ২৫ হাজার থেকে ৫০ হাজার টাকা পর্যন্ত বৃদ্ধি করা, স্টক ডিভিডেন্ডের পরিবর্তে ক্যাশ ডিভিডেন্ড উৎসাহিত করার জন্য স্টক ডিভিডেন্ডের উপর ১৫ শতাংশ কর প্রদান পুঁজি বাজার উন্নয়নে সহায়ক হবে।

সৈয়দ জামাল আহমেদ বলেন, নতুন ভ্যাট আইনে নিবন্ধন, তালিকাভুক্তি, রিটার্ণ দাখিল, কর পরিশোধ ইত্যাদি অনলাইনে সম্পাদনের সুযোগ রাখা হয়েছে। তবে এক্ষেত্রে বিদ্যমান মূল্য ঘোষণা পদ্ধতির পরিবর্তে বিনিময় বা ন্যায্য বাজার মূল্যের ভিত্তিতে কর পরিশোধের যে ব্যবস্থা রাখা হয়েছে, তার সুনির্দিষ্ট ব্যাখ্যা প্রয়োজন। এ আইনে ৫০ লাখ টাকা পর্যন্ত টার্নওভারে মূসক অব্যাহতি ও মূসক নিবন্ধন সীমা ৮০ লাখ টাকা থেকে ৩ কোটি টাকা করা এবং স্থানীয় ব্যবসায়ী পর্যায়ে ৫ শতাংশ মূসক হার ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক ব্যবসায়ীদের জন্য সহায়ক হবে।

তিনি বলেন, ‘‘তবে ইলেকট্রনিক ফিসকেল ডিভাইস এবং সেলস ডাটা কন্ট্রোলার স্থাপন বাধ্যতামূলক করার বিষয় পুনর্বিবেচনা করা প্রয়োজন। কারণ আমাদের দেশের ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা এখনো ততটা প্রস্তুত নয়। নারী উদ্যোক্তা পরিচালিত শো রুমের ক্ষেত্রে মূসক অব্যাহতি অর্থনীতিতে তাদের সম্পৃক্ততা উৎসাহিত করবে। স্মার্ট ফোনের আমদানি শুল্ক বৃদ্ধি করা ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়নকে ক্ষতিগ্রস্ত করবে। ঔষধ শিল্পে ব্যবহৃত কাঁচামালের শুল্ক রেয়াত সুবিধা এবং মেডিক্যাল গ্যাস প্রস্তুতকারী কাঁচামালের উপর ডিউটি হ্রাস করায় সাধারণ মানুষের স্বাস্থ্য খাতে ব্যয় কমবে। প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় বজ্রপাত প্রতিরক্ষা সামগ্রী আমদানি শুল্ক হ্রাস করা হয়েছে। শিল্পখাতে আমদানিকৃত নমুনা দ্রুত ছাড়করণের ক্ষেত্রে ডিমিনিমাস বিধিমালা সহায়ক হবে। এ ছাড়া স্বর্ণ আমদানিতে শুল্ক হ্রাস করা কালোবাজারি রোধ এবং রাজস্ব আহরণ বৃদ্ধি করবে।

তিনি বলেন, দেশীয় শিল্প রেফ্রিজারেটর, এয়ারকন্ডিশন ইত্যাদিতে মূসক অব্যাহতি বহাল রাখা এসব শিল্পের সম্প্রসারণে ভূমিকা রাখবে বলে আমরা মনে করি। চেম্বার সহ-সভাপতি গণপরিবহন ছাড়া ব্যক্তি মালিকানাধীন গাড়ির ক্ষেত্রে ১০ শতাংশ সম্পূরক শুল্ক প্রত্যাহার করার আহ্বান জানান।

বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে ২০১৯-২০ অর্থ বছরের প্রস্তাবিত বাজেট পেশ করেন অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।      



রাইজিংবিডি/চট্টগ্রাম/১৪ জুন ২০১৯/রেজাউল/বকুল

Walton AC
ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন
       

Walton AC
Marcel Fridge